০৫:০৪ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ১২ জুলাই ২০২৪, ২৮ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

কুষ্টিয়া দৌলতপুরে পুলিশের কাছ থেকে মাদক ব্যবসায়ী পালিয়েছে

###    কুষ্টিয়ার দৌলতপুর উপজেলার ফারাকপুর এলাকায় পুলিশ গাঁজাসহ দুই মাদক বিক্রেতাকে আটকের পর পুলিশকে মেরে এক মাদক বিক্রেতা পালিয়ে যাবার ঘটনা ঘটেছে।ওই অভিযানে ১কেজি গাঁজাসহ তারাগুনিয়া এলাকার মৃত মোশারক হোসেনের ছেলে আজাদ হোসেন ও রাজশাহী জেলার বাঘা উপজেলা এলাকার মান্নানের ছেলে মনিরুল ইসলাম নামে দুজনকে আটক করে। পরে দেন দরবার করার সময় পুলিশের হাত থেকে আজাদ পালিয়ে যায় বলে স্থানীয়রা জানিয়েছে। ঘটনাস্থলে উপস্থিত প্রতক্ষদর্শীরা জানায়, বুধবার সন্ধ্যার দিকে মথুরাপুর ইউনিয়নের তারাগুনিয়া ফারাকপুর এলাকায় ১ কেজি গাঁজাসহ মাদক ব্যবসায়ী আজাদ ও মনিরুল কে আটক করে দৌলতপুর থানার এস,আই চিরঞ্জিৎ মন্ডল। আটকের পর আসামীদের থানায় না নিয়ে এসে তারাগুনিয়া বাজারে অবস্থিত হাছানাত এর হাজী নান্না বিরিয়ানি হাউজে শুরু হয় দরকষাকষি।ওই সময় মাদক ব্যবসায়ী আজাদের লোকজন পুলিশের উপর চড়াও ধাক্কাধাক্কি করে তাকে ছিনিয়ে নিয়ে যায়।এরপর শুধু মনিরুলকে আটক করে থানায় নিয়ে আসে এস,আই চিরঞ্জিৎ মন্ডল। এ ব্যাপারে এসআই চিরঞ্জিৎ মন্ডলের কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন,গাঁজাসহ আটক করা হয়েছে মনিরুল ইসলাম নামে একজন মাদক বিক্রেতাকে।ঘটনাস্থল থেকে মাদক বিক্রেতা আজাদ নামে কাউকে আটক করেছিলেন কিনা?’ এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন,আজাদকে গ্রেপ্তার করতে পারি নাই সে আমাদের পুলিশ সদস্যদের মেরে,ইট পাটকেল ছুড়ে পালিয়ে গেছে। দৌলতপুর থানার ওসি মুজিবুর রহমানের কাছে জানতে চাইলে তিনি ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন,মনিরুল ইসলাম নামে একজন কে আটক করা হয়েছে এবং আজাদ নামের আরেকজন কে ধরতে চেষ্টা চলছে বলে তিনি জানান।এ বিষয়ে দৌলতপুর থানায় একটি মামলা হয়েছে।##

Tag :
লেখক তথ্য সম্পর্কে

Dainik adhumati

দশমিনায় অসহায় ও দরিদ্রদের মাঝে চেক বিতরণ

কুষ্টিয়া দৌলতপুরে পুলিশের কাছ থেকে মাদক ব্যবসায়ী পালিয়েছে

প্রকাশিত সময় : ০৯:৫৭:৩৮ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ২৮ এপ্রিল ২০২৩

###    কুষ্টিয়ার দৌলতপুর উপজেলার ফারাকপুর এলাকায় পুলিশ গাঁজাসহ দুই মাদক বিক্রেতাকে আটকের পর পুলিশকে মেরে এক মাদক বিক্রেতা পালিয়ে যাবার ঘটনা ঘটেছে।ওই অভিযানে ১কেজি গাঁজাসহ তারাগুনিয়া এলাকার মৃত মোশারক হোসেনের ছেলে আজাদ হোসেন ও রাজশাহী জেলার বাঘা উপজেলা এলাকার মান্নানের ছেলে মনিরুল ইসলাম নামে দুজনকে আটক করে। পরে দেন দরবার করার সময় পুলিশের হাত থেকে আজাদ পালিয়ে যায় বলে স্থানীয়রা জানিয়েছে। ঘটনাস্থলে উপস্থিত প্রতক্ষদর্শীরা জানায়, বুধবার সন্ধ্যার দিকে মথুরাপুর ইউনিয়নের তারাগুনিয়া ফারাকপুর এলাকায় ১ কেজি গাঁজাসহ মাদক ব্যবসায়ী আজাদ ও মনিরুল কে আটক করে দৌলতপুর থানার এস,আই চিরঞ্জিৎ মন্ডল। আটকের পর আসামীদের থানায় না নিয়ে এসে তারাগুনিয়া বাজারে অবস্থিত হাছানাত এর হাজী নান্না বিরিয়ানি হাউজে শুরু হয় দরকষাকষি।ওই সময় মাদক ব্যবসায়ী আজাদের লোকজন পুলিশের উপর চড়াও ধাক্কাধাক্কি করে তাকে ছিনিয়ে নিয়ে যায়।এরপর শুধু মনিরুলকে আটক করে থানায় নিয়ে আসে এস,আই চিরঞ্জিৎ মন্ডল। এ ব্যাপারে এসআই চিরঞ্জিৎ মন্ডলের কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন,গাঁজাসহ আটক করা হয়েছে মনিরুল ইসলাম নামে একজন মাদক বিক্রেতাকে।ঘটনাস্থল থেকে মাদক বিক্রেতা আজাদ নামে কাউকে আটক করেছিলেন কিনা?’ এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন,আজাদকে গ্রেপ্তার করতে পারি নাই সে আমাদের পুলিশ সদস্যদের মেরে,ইট পাটকেল ছুড়ে পালিয়ে গেছে। দৌলতপুর থানার ওসি মুজিবুর রহমানের কাছে জানতে চাইলে তিনি ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন,মনিরুল ইসলাম নামে একজন কে আটক করা হয়েছে এবং আজাদ নামের আরেকজন কে ধরতে চেষ্টা চলছে বলে তিনি জানান।এ বিষয়ে দৌলতপুর থানায় একটি মামলা হয়েছে।##