১০:৩৭ অপরাহ্ন, শনিবার, ১৫ জুন ২০২৪, ১ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

খুবির গবেষণা তহবিলে অ্যালামনাই অ্যাসোসিয়েশনের অনুদান প্রদান

  • অফিস ডেক্স।।
  • প্রকাশিত সময় : ০৯:০১:১১ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৬ এপ্রিল ২০২৩
  • ৩৯ পড়েছেন

###     খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়ের নিজস্ব গবেষণা তহবিল ‘রিসার্চ ইনডোমেন্ট ফান্ড’ এ পাঁচ লাখ টাকা অনুদান প্রদান করেছে খুলনা বিশ্ববিদ্যালয় অ্যালামনাই অ্যাসোসিয়েশন। বুধবার বিকাল সাড়ে ৫টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য প্রফেসর ড. মাহমুদ হোসেন এর নিকট পাঁচ লাখ টাকার চেক হস্তান্তর করেন অ্যালামনাই অ্যাসোসিয়েশনের নেতৃবৃন্দ। এ সময় উপাচার্য বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের নিজস্ব গবেষণা তহবিল সংগ্রহের তাগিদ দেওয়ার পর খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়ে রিসার্চ ইনডোমেন্ট ফান্ড গঠন করা হয়। ইতোমধ্যে এটি অর্থ কমিটির অনুমোদন পেয়েছে এবং আগামী সিন্ডিকেটে চূড়ান্ত অনুমোদনের অপেক্ষায় রয়েছে। নবগঠিত এই ফান্ডে সর্বপ্রথম খুলনা বিশ্ববিদ্যালয় অ্যালামনাই অ্যাসোসিয়েশন অনুদান প্রদান করলো। তাদের এই অনুদান খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষণা অগ্রযাত্রায় স্মরণীয় হয়ে থাকবে এবং দেশ ও জাতি গঠনে ভূমিকা রাখবে। আমি তাদের এই অংশগ্রহণকে সাধুবাদ জানাই এবং অ্যালামনাই অ্যাসোসিয়েশনের প্রতি ধন্যবাদ জ্ঞাপন করছি। তিনি বলেন, খুলনা বিশ্ববিদ্যালয় অ্যালামনাই অ্যাসোসিয়েশন সর্বদা বিশ্ববিদ্যালয়ের ভালো কাজগুলোর সাথে জড়িত। তাদের এই অনুদান এটা প্রমাণ করে। প্রাক্তন শিক্ষার্থী হিসেবে বিশ্ববিদ্যালয়ের জন্য কিছু করতে পারা মানসিক প্রশান্তির বিষয়। এটা অন্য সবার জন্য উৎসাহ হিসেবে কাজ করবে। তিনি আরও বলেন, জ্ঞান চর্চা ও উদ্ভাবনে গবেষণার কোনো বিকল্প নেই। একটি বিশ্ববিদ্যালয় সম্পর্কে ধারণা পাওয়া যায় তার গবেষণাকর্ম থেকে। খুলনা বিশ্ববিদ্যালয় উচ্চশিক্ষা ও গবেষণায় অভীষ্ট লক্ষ্য অর্জনে এগিয়ে যাচ্ছে। শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা একাডেমিক ও গবেষণায় নিজেদের সেরাটা দেওয়ার চেষ্টা করছেন। ইন্টারন্যাশনাল হাই ইমপ্যাক্ট ফ্যাক্টর জার্নালে শিক্ষকদের গবেষণা নিবন্ধ প্রকাশে অনুদান দেওয়া হচ্ছে। শিক্ষকদের পাশাপাশি শিক্ষার্থীরাও গবেষণামনষ্ক হচ্ছে। গবেষণায় আগ্রহী করে তুলতে প্রতি ডিসিপ্লিনের শিক্ষার্থীদের অনুদান প্রদান করা হচ্ছে। আগামীতে এই অনুদানের পরিধি আরও বাড়ানো হবে। তিনি আরও বলেন, খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়ের একটি রিসার্চ প্রকল্পে ইতোমধ্যে ব্যাংক এশিয়া বড় অংকের একটি অনুদান প্রদান করেছে। আজ রিসার্চ ইনডোমেন্ট ফান্ডে অ্যালামনাই অ্যাসোসিয়েশন অনুদান প্রদান করলো। আগামীতে অনুদান প্রদানের জন্য ডিসিপ্লিন পর্যায়ে যে অ্যালামনাই অ্যাসোসিয়েশন রয়েছে তাদের এগিয়ে আসার জন্য উপাচার্য তাগিদ দেন। একই সাথে তিনি সমাজের বিত্তশালী, সমাজসেবক, চিন্তাবিদদের এই ধরনের মহৎ কাজে অনুদান প্রদানের জন্য আহ্বান জানান। এসময় অ্যালামনাই অ্যাসোসিয়েশনের নেতৃবৃন্দ আগামীতে এ ধরনের মহৎ কাজে তাদের সহযোগিতা অব্যাহত থাকবে বলে আশা প্রকাশ করেন। এসময় আরও বক্তব্য রাখেন বিশ্ববিদ্যালয়ের ট্রেজারার প্রফেসর অমিত রায় চৌধুরী, রেজিস্ট্রার (ভারপ্রাপ্ত) প্রফেসর খান গোলাম কুদ্দুস। খুলনা বিশ্ববিদ্যালয় অ্যালামনাই অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি মো. মনিরুল হাসান তুহিন, সাধারণ সম্পাদক ফজলে রেজা সুমন, কোষাধ্যক্ষ সৈয়দ শাহরিয়ার আমিন, অ্যাসোসিয়েশনের সদস্য প্রফেসর ড. মো. আনিসুর রহমান, প্রফেসর মো. শরীফ হাসান লিমন, প্রফেসর ড. আবু শামীম মোহাম্মদ আরিফ, সঞ্জয় সাহা, আব্দুল্লাহ আল মামুন, হিমাদ্রী শেখর মন্ডলসহ বিশ্ববিদ্যালয়ের সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাবৃন্দ এ সময় উপস্থিত ছিলেন। ##

Tag :
লেখক তথ্য সম্পর্কে

Dainik adhumati

জনপ্রিয়

কুয়েটে পবিত্র ঈদ-উল-আযহার জামাত সকাল ৭ টায় 

খুবির গবেষণা তহবিলে অ্যালামনাই অ্যাসোসিয়েশনের অনুদান প্রদান

প্রকাশিত সময় : ০৯:০১:১১ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৬ এপ্রিল ২০২৩

###     খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়ের নিজস্ব গবেষণা তহবিল ‘রিসার্চ ইনডোমেন্ট ফান্ড’ এ পাঁচ লাখ টাকা অনুদান প্রদান করেছে খুলনা বিশ্ববিদ্যালয় অ্যালামনাই অ্যাসোসিয়েশন। বুধবার বিকাল সাড়ে ৫টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য প্রফেসর ড. মাহমুদ হোসেন এর নিকট পাঁচ লাখ টাকার চেক হস্তান্তর করেন অ্যালামনাই অ্যাসোসিয়েশনের নেতৃবৃন্দ। এ সময় উপাচার্য বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের নিজস্ব গবেষণা তহবিল সংগ্রহের তাগিদ দেওয়ার পর খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়ে রিসার্চ ইনডোমেন্ট ফান্ড গঠন করা হয়। ইতোমধ্যে এটি অর্থ কমিটির অনুমোদন পেয়েছে এবং আগামী সিন্ডিকেটে চূড়ান্ত অনুমোদনের অপেক্ষায় রয়েছে। নবগঠিত এই ফান্ডে সর্বপ্রথম খুলনা বিশ্ববিদ্যালয় অ্যালামনাই অ্যাসোসিয়েশন অনুদান প্রদান করলো। তাদের এই অনুদান খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষণা অগ্রযাত্রায় স্মরণীয় হয়ে থাকবে এবং দেশ ও জাতি গঠনে ভূমিকা রাখবে। আমি তাদের এই অংশগ্রহণকে সাধুবাদ জানাই এবং অ্যালামনাই অ্যাসোসিয়েশনের প্রতি ধন্যবাদ জ্ঞাপন করছি। তিনি বলেন, খুলনা বিশ্ববিদ্যালয় অ্যালামনাই অ্যাসোসিয়েশন সর্বদা বিশ্ববিদ্যালয়ের ভালো কাজগুলোর সাথে জড়িত। তাদের এই অনুদান এটা প্রমাণ করে। প্রাক্তন শিক্ষার্থী হিসেবে বিশ্ববিদ্যালয়ের জন্য কিছু করতে পারা মানসিক প্রশান্তির বিষয়। এটা অন্য সবার জন্য উৎসাহ হিসেবে কাজ করবে। তিনি আরও বলেন, জ্ঞান চর্চা ও উদ্ভাবনে গবেষণার কোনো বিকল্প নেই। একটি বিশ্ববিদ্যালয় সম্পর্কে ধারণা পাওয়া যায় তার গবেষণাকর্ম থেকে। খুলনা বিশ্ববিদ্যালয় উচ্চশিক্ষা ও গবেষণায় অভীষ্ট লক্ষ্য অর্জনে এগিয়ে যাচ্ছে। শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা একাডেমিক ও গবেষণায় নিজেদের সেরাটা দেওয়ার চেষ্টা করছেন। ইন্টারন্যাশনাল হাই ইমপ্যাক্ট ফ্যাক্টর জার্নালে শিক্ষকদের গবেষণা নিবন্ধ প্রকাশে অনুদান দেওয়া হচ্ছে। শিক্ষকদের পাশাপাশি শিক্ষার্থীরাও গবেষণামনষ্ক হচ্ছে। গবেষণায় আগ্রহী করে তুলতে প্রতি ডিসিপ্লিনের শিক্ষার্থীদের অনুদান প্রদান করা হচ্ছে। আগামীতে এই অনুদানের পরিধি আরও বাড়ানো হবে। তিনি আরও বলেন, খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়ের একটি রিসার্চ প্রকল্পে ইতোমধ্যে ব্যাংক এশিয়া বড় অংকের একটি অনুদান প্রদান করেছে। আজ রিসার্চ ইনডোমেন্ট ফান্ডে অ্যালামনাই অ্যাসোসিয়েশন অনুদান প্রদান করলো। আগামীতে অনুদান প্রদানের জন্য ডিসিপ্লিন পর্যায়ে যে অ্যালামনাই অ্যাসোসিয়েশন রয়েছে তাদের এগিয়ে আসার জন্য উপাচার্য তাগিদ দেন। একই সাথে তিনি সমাজের বিত্তশালী, সমাজসেবক, চিন্তাবিদদের এই ধরনের মহৎ কাজে অনুদান প্রদানের জন্য আহ্বান জানান। এসময় অ্যালামনাই অ্যাসোসিয়েশনের নেতৃবৃন্দ আগামীতে এ ধরনের মহৎ কাজে তাদের সহযোগিতা অব্যাহত থাকবে বলে আশা প্রকাশ করেন। এসময় আরও বক্তব্য রাখেন বিশ্ববিদ্যালয়ের ট্রেজারার প্রফেসর অমিত রায় চৌধুরী, রেজিস্ট্রার (ভারপ্রাপ্ত) প্রফেসর খান গোলাম কুদ্দুস। খুলনা বিশ্ববিদ্যালয় অ্যালামনাই অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি মো. মনিরুল হাসান তুহিন, সাধারণ সম্পাদক ফজলে রেজা সুমন, কোষাধ্যক্ষ সৈয়দ শাহরিয়ার আমিন, অ্যাসোসিয়েশনের সদস্য প্রফেসর ড. মো. আনিসুর রহমান, প্রফেসর মো. শরীফ হাসান লিমন, প্রফেসর ড. আবু শামীম মোহাম্মদ আরিফ, সঞ্জয় সাহা, আব্দুল্লাহ আল মামুন, হিমাদ্রী শেখর মন্ডলসহ বিশ্ববিদ্যালয়ের সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাবৃন্দ এ সময় উপস্থিত ছিলেন। ##