০৯:৩০ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২৯ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১৭ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

খুরনায় কমরেড রতন সেনের জন্মশতবার্ষিকী পালন ও বর্ষব্যাপী কর্মসূচির উদ্বোধন

  • অফিস ডেক্স।।
  • প্রকাশিত সময় : ০৮:১১:০৯ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ৪ এপ্রিল ২০২৩
  • ৩২ পড়েছেন

###    মহান মুক্তিযুদ্ধের অন্যতম সংগঠক প্রখ্যাত কমিউনিস্ট নেতা বাংলাদেশের কমিউনিস্ট পার্টি (সিপিবি)’র সম্পাদকম-লীর সাবেক সদস্য খুলনা জেলা কমিটির সাবেক সভাপতি কমরেড রতন সেনের জন্মশতবার্ষিক উপলক্ষে সোমবার ডিসি অফিসের সম্মুখে কমরেড রতন সেনের স্মৃতিস্তম্ভ বেদীতে পুষ্পমাল্য অর্পণ করে শ্রদ্ধা জ্ঞাপন করা হয়। কমরেড রতন সেন জন্মশতবার্ষিক উদ্যাপন পরিষদ, সিপিবি খুলনা জেলা ও মহানগর, বাসদ, টিইউসি, যুব ইউনিয়ন, ছাত্র ইউনিয়ন, উদীচী, রতন সেন পাবলিক লাইব্রেরীর নেতৃবৃন্দ পুষ্পমাল্য অর্পণ করে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন। পওে কমরেড রতন সেন কলেজিয়েট গার্লস স্কুলে অস্থায়ী বেদীতে পুষ্পমাল্য প্রদান করে শ্রদ্ধা জ্ঞাপন করা হয়। বিকেলে উমেশ চন্দ্র পাবলিক লাইব্রেরী মিলনায়তনে আলোচনা সভা পরিষদের আহ্বায়ক কমরেড সুখেন রায়ের সভাপতিত্বে এবং সদস্য সচিব কমরেড এড. এম এম রুহুল আমিনের পরিচালনায় অনুষ্ঠিত হয়। সভায় বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশের কমিউনিস্ট পার্টি (সিপিবি) সাধারণ সম্পাদক কমরেড সরদার রুহিন হোসেন প্রিন্স, বাংলাদেশের বিপ্লবী কমিউনিস্ট লীগের সাধারণ সম্পাদক কমরেড ইকবাল কবির জাহিদ, বাংলাদেশের সমাজতান্ত্রিক দলÑবাসদ সহকারী সাধারণ সম্পাদক কমরেড রাজেকুজ্জামান রতন, সিপিবি কেন্দ্রীয় সদস্য ও খুলনা জেলা সভাপতি কমরেড ডাঃ মনোজ দাশ, কেন্দ্রীয় সদস্য ও খুলনা জেলা সাধারণ সম্পাদক কমরেড এস এ রশীদ, বিপ্লবী কমিউনিস্ট লীগের কেন্দ্রীয় নেতা কমরেড মোজাম্মেল হক, বাসদ কেন্দ্রীয় নেতা ও খুলনা জেলা সমন্বয়ক কমরেড জনার্দন দত্ত নাণ্টু, পরিষদের যুগ্ম আহ্বায়ক অধ্যাপক ড. মনিরুল ইসলাম ও অধ্যাপক শেখ সাদী ভূঁইয়া, সিপিবি খুলনা জেলা নেতা ও বটিয়াঘাটা উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান কমরেড নিতাই গাইন, সিপিবি মহানগর সভাপতি কমরেড মিজানুর রহমান বাবু। বক্তারা বলেন, এ মহান বিপ্লবীর জন্ম ১৯২৩ সালের ০৩ এপ্রিল বরিশাল জেলার উজিরপুরে। দৌলতপুর মহসিন প্রাথমিক বিদ্যালয়ে হাতে খড়ি ও ১৯৩৮ সালে মহসীন হাই স্কুল থেকে মেট্রিক পাস করেন। ১৯৪০ সালে দৌলতপুর কলেজ থেকে ইন্টারমিডিয়েট পাস করে বিএ (অনার্স) ইংরেজিতে ভর্র্তি হন। কলেজে ছাত্র ধর্মঘটে সক্রিয় অংশগ্রহণ করায় তিনি গ্রেফতার হন এবং জেলে বসে পরীক্ষায় ১৯৪২ সালে ডিসটিংশনসহ বিএ পাস করেন। মহসিন হাই স্কুলে পড়ার সময় বড়দাদা মোহিত সেনের হাত ধরে রাজনীতির হাতে খড়ি। ১৯৩৬ সালে বিশ্ব ছাত্র ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক জেমস কলুগম্যান ভারতে আসেন এবং ভারতীয় ছাত্র ফেডারেশন গঠন করেন। রতন সেন ঐ সংগঠনে সক্রিয়ভাবে যুক্ত হন। ছাত্রাবস্থায় প্রমথ ভৌমিক, ভবানী সেনগুপ্ত প্রমুখ কমিউনিস্ট নেতৃবৃন্দের সংস্পর্শে এসে কমিউনিস্ট পার্টির সাথে যুক্ত হন। ১৯৪২ সালে জেল থেকে ছাড়া পাওয়ার পর তিনি কমিউনিস্ট পার্টির সদস্য পদ লাভ করেন। ১৯৪৭ সালে দেশ ভাগের পর পরিবারের সকলে দেশত্যাগ করলেও তিনি চলে যাননি মাটির টানে। কমরেড রতন সেন মার্কসবাদী প-িত ছিলেন। চিরায়ত মাকর্সীয় সাহিত্যের বাইরে সমসাময়িক নানা বিষয় নিয়ে তিনি লেখালেখি ও অনর্গল কথা বলতে পারতেন। তিনি কৃষক সমিতি কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য ও খুলনা জেলা কমিটির সভাপতি ছিলেন। ১৯৯২ সালের ৩১ জুলাই খুলনা ডিসি, এসপি অফিসের সামনে সকাল ৯টায় দুর্বৃত্তদের ছুরিকাঘাতে শহীদ হন। বক্তারা আরও বলেন, কমরেড রতন সেনরা মরে না, রতন সেন বেঁচে থাকবেন দেশের মেহনতী মানুষের আন্দোলন সংগ্রামে। দেশে শোষণ বৈষম্য লুটপাটের সমাজ ভেঙ্গে সমাজতন্ত্র কায়েমের মধ্য দিয়ে কমরেড রতন সেনের হত্যার বদলা নেয়া হবে। এটাই কমরেড রতন সেনের জন্মশতবার্ষিক অঙ্গীকার।
এ সময়ে আরও উপস্থিত ছিলেন সিপিবি নেতা এইচ এম শাহাদাৎ, এড. নিত্যানন্দ ঢালী, এড. চিত্তরঞ্জন গোলদার, সুতপা বেদজ্ঞ, কিশোর রায়, অশোক সরকার, নিতাই পাল, এড. বাবুল হাওলাদার, তোফাজ্জেল হোসেন, হুমায়ুন কবির, সোহরাব হোসেন, আব্দুর রহমান মোল্লা, গাজী আফজাল, এড. প্রশান্ত ম-ল, আব্দুল হালিম, কিংশুক রায়, রঙ্গলাল মৃধা, এড. অসীত হালদার, অসীম আনন্দ দাস, এড. সন্দীপ রায়, এড. প্রীতিষ ম-ল, প্রদীপ সাহা, গোলাম রব্বানী, অধ্যাপক সঞ্জয় সাহা, এড. সুব্রত কু-ু, এড. হিমাংশু বাইন, মহেন্দ্র নাথ সেন, এড. প্রণব গোলদার, এড. গৌরাঙ্গ সরকার, এস এম চন্দন, ফরহাদ হোসেন মিটন, মিজানুর রহমান স্বপন, সরকার ভূষণ চন্দ্র তরুণ, দুলাল সরকার, রসু আক্তার, জাহানারা আক্তারী, মিনু পাল, বাসদ নেতা আব্দুল করিম, কোহিনুর আক্তার কণা, সনজিত ম-ল, কমিউনিস্ট লীগ নেতা আনিসুর রহমান মিঠু, মোস্তফা খালিদ খসরু, রতন সেন কলেজিয়েট স্কুলের অধ্যক্ষ লক্ষ্মণ সাহা, যুবনেতা ধীমান বিশ্বাস, আফজাল হোসেন রাজু, শাহ ওয়াহিদুজ্জামান জাহাঙ্গীর, রামপ্রসাদ রায়, ভবেশ রায়, জামাল হোসেন, উত্তম রায়, ছাত্রনেতা সৌরভ সমাদ্দার, সৌমিত্র সৌরভ, নাহিদ ইসলাম প্রমুখ। ##

Tag :
লেখক তথ্য সম্পর্কে

Dainik adhumati

জনপ্রিয়

বাকেরগঞ্জে কৃষি ব্যাংকের গ্রাহকদের সঙ্গে মতবিনিময় সভা

খুরনায় কমরেড রতন সেনের জন্মশতবার্ষিকী পালন ও বর্ষব্যাপী কর্মসূচির উদ্বোধন

প্রকাশিত সময় : ০৮:১১:০৯ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ৪ এপ্রিল ২০২৩

###    মহান মুক্তিযুদ্ধের অন্যতম সংগঠক প্রখ্যাত কমিউনিস্ট নেতা বাংলাদেশের কমিউনিস্ট পার্টি (সিপিবি)’র সম্পাদকম-লীর সাবেক সদস্য খুলনা জেলা কমিটির সাবেক সভাপতি কমরেড রতন সেনের জন্মশতবার্ষিক উপলক্ষে সোমবার ডিসি অফিসের সম্মুখে কমরেড রতন সেনের স্মৃতিস্তম্ভ বেদীতে পুষ্পমাল্য অর্পণ করে শ্রদ্ধা জ্ঞাপন করা হয়। কমরেড রতন সেন জন্মশতবার্ষিক উদ্যাপন পরিষদ, সিপিবি খুলনা জেলা ও মহানগর, বাসদ, টিইউসি, যুব ইউনিয়ন, ছাত্র ইউনিয়ন, উদীচী, রতন সেন পাবলিক লাইব্রেরীর নেতৃবৃন্দ পুষ্পমাল্য অর্পণ করে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন। পওে কমরেড রতন সেন কলেজিয়েট গার্লস স্কুলে অস্থায়ী বেদীতে পুষ্পমাল্য প্রদান করে শ্রদ্ধা জ্ঞাপন করা হয়। বিকেলে উমেশ চন্দ্র পাবলিক লাইব্রেরী মিলনায়তনে আলোচনা সভা পরিষদের আহ্বায়ক কমরেড সুখেন রায়ের সভাপতিত্বে এবং সদস্য সচিব কমরেড এড. এম এম রুহুল আমিনের পরিচালনায় অনুষ্ঠিত হয়। সভায় বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশের কমিউনিস্ট পার্টি (সিপিবি) সাধারণ সম্পাদক কমরেড সরদার রুহিন হোসেন প্রিন্স, বাংলাদেশের বিপ্লবী কমিউনিস্ট লীগের সাধারণ সম্পাদক কমরেড ইকবাল কবির জাহিদ, বাংলাদেশের সমাজতান্ত্রিক দলÑবাসদ সহকারী সাধারণ সম্পাদক কমরেড রাজেকুজ্জামান রতন, সিপিবি কেন্দ্রীয় সদস্য ও খুলনা জেলা সভাপতি কমরেড ডাঃ মনোজ দাশ, কেন্দ্রীয় সদস্য ও খুলনা জেলা সাধারণ সম্পাদক কমরেড এস এ রশীদ, বিপ্লবী কমিউনিস্ট লীগের কেন্দ্রীয় নেতা কমরেড মোজাম্মেল হক, বাসদ কেন্দ্রীয় নেতা ও খুলনা জেলা সমন্বয়ক কমরেড জনার্দন দত্ত নাণ্টু, পরিষদের যুগ্ম আহ্বায়ক অধ্যাপক ড. মনিরুল ইসলাম ও অধ্যাপক শেখ সাদী ভূঁইয়া, সিপিবি খুলনা জেলা নেতা ও বটিয়াঘাটা উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান কমরেড নিতাই গাইন, সিপিবি মহানগর সভাপতি কমরেড মিজানুর রহমান বাবু। বক্তারা বলেন, এ মহান বিপ্লবীর জন্ম ১৯২৩ সালের ০৩ এপ্রিল বরিশাল জেলার উজিরপুরে। দৌলতপুর মহসিন প্রাথমিক বিদ্যালয়ে হাতে খড়ি ও ১৯৩৮ সালে মহসীন হাই স্কুল থেকে মেট্রিক পাস করেন। ১৯৪০ সালে দৌলতপুর কলেজ থেকে ইন্টারমিডিয়েট পাস করে বিএ (অনার্স) ইংরেজিতে ভর্র্তি হন। কলেজে ছাত্র ধর্মঘটে সক্রিয় অংশগ্রহণ করায় তিনি গ্রেফতার হন এবং জেলে বসে পরীক্ষায় ১৯৪২ সালে ডিসটিংশনসহ বিএ পাস করেন। মহসিন হাই স্কুলে পড়ার সময় বড়দাদা মোহিত সেনের হাত ধরে রাজনীতির হাতে খড়ি। ১৯৩৬ সালে বিশ্ব ছাত্র ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক জেমস কলুগম্যান ভারতে আসেন এবং ভারতীয় ছাত্র ফেডারেশন গঠন করেন। রতন সেন ঐ সংগঠনে সক্রিয়ভাবে যুক্ত হন। ছাত্রাবস্থায় প্রমথ ভৌমিক, ভবানী সেনগুপ্ত প্রমুখ কমিউনিস্ট নেতৃবৃন্দের সংস্পর্শে এসে কমিউনিস্ট পার্টির সাথে যুক্ত হন। ১৯৪২ সালে জেল থেকে ছাড়া পাওয়ার পর তিনি কমিউনিস্ট পার্টির সদস্য পদ লাভ করেন। ১৯৪৭ সালে দেশ ভাগের পর পরিবারের সকলে দেশত্যাগ করলেও তিনি চলে যাননি মাটির টানে। কমরেড রতন সেন মার্কসবাদী প-িত ছিলেন। চিরায়ত মাকর্সীয় সাহিত্যের বাইরে সমসাময়িক নানা বিষয় নিয়ে তিনি লেখালেখি ও অনর্গল কথা বলতে পারতেন। তিনি কৃষক সমিতি কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য ও খুলনা জেলা কমিটির সভাপতি ছিলেন। ১৯৯২ সালের ৩১ জুলাই খুলনা ডিসি, এসপি অফিসের সামনে সকাল ৯টায় দুর্বৃত্তদের ছুরিকাঘাতে শহীদ হন। বক্তারা আরও বলেন, কমরেড রতন সেনরা মরে না, রতন সেন বেঁচে থাকবেন দেশের মেহনতী মানুষের আন্দোলন সংগ্রামে। দেশে শোষণ বৈষম্য লুটপাটের সমাজ ভেঙ্গে সমাজতন্ত্র কায়েমের মধ্য দিয়ে কমরেড রতন সেনের হত্যার বদলা নেয়া হবে। এটাই কমরেড রতন সেনের জন্মশতবার্ষিক অঙ্গীকার।
এ সময়ে আরও উপস্থিত ছিলেন সিপিবি নেতা এইচ এম শাহাদাৎ, এড. নিত্যানন্দ ঢালী, এড. চিত্তরঞ্জন গোলদার, সুতপা বেদজ্ঞ, কিশোর রায়, অশোক সরকার, নিতাই পাল, এড. বাবুল হাওলাদার, তোফাজ্জেল হোসেন, হুমায়ুন কবির, সোহরাব হোসেন, আব্দুর রহমান মোল্লা, গাজী আফজাল, এড. প্রশান্ত ম-ল, আব্দুল হালিম, কিংশুক রায়, রঙ্গলাল মৃধা, এড. অসীত হালদার, অসীম আনন্দ দাস, এড. সন্দীপ রায়, এড. প্রীতিষ ম-ল, প্রদীপ সাহা, গোলাম রব্বানী, অধ্যাপক সঞ্জয় সাহা, এড. সুব্রত কু-ু, এড. হিমাংশু বাইন, মহেন্দ্র নাথ সেন, এড. প্রণব গোলদার, এড. গৌরাঙ্গ সরকার, এস এম চন্দন, ফরহাদ হোসেন মিটন, মিজানুর রহমান স্বপন, সরকার ভূষণ চন্দ্র তরুণ, দুলাল সরকার, রসু আক্তার, জাহানারা আক্তারী, মিনু পাল, বাসদ নেতা আব্দুল করিম, কোহিনুর আক্তার কণা, সনজিত ম-ল, কমিউনিস্ট লীগ নেতা আনিসুর রহমান মিঠু, মোস্তফা খালিদ খসরু, রতন সেন কলেজিয়েট স্কুলের অধ্যক্ষ লক্ষ্মণ সাহা, যুবনেতা ধীমান বিশ্বাস, আফজাল হোসেন রাজু, শাহ ওয়াহিদুজ্জামান জাহাঙ্গীর, রামপ্রসাদ রায়, ভবেশ রায়, জামাল হোসেন, উত্তম রায়, ছাত্রনেতা সৌরভ সমাদ্দার, সৌমিত্র সৌরভ, নাহিদ ইসলাম প্রমুখ। ##