০৪:১০ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ১২ জুলাই ২০২৪, ২৮ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

জলবায়ু পরিবর্তনের ফলে নদী ভাঙ্গন, ঝড় ও বন্যা সহ প্রাকৃতিক দুর্যোগ বাড়ছে

###    জলবায়ু সম্মেলন পরবর্তী এক সংবাদ সম্মেলন সোমবার দুপুরে খুলনা সিটি কর্পোরেশন (কেসিসি)’র শহিদ আলতাফ মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত হয়। সংবাদ সম্মেলনে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন কেসিসি’র মেয়র তালুকদার আব্দুল খালেক। তৃতীয় উপকূলীয় পানি সম্মেলন কমিটি ও বেসরকারি উন্নয়ন সংস্থা অ্যাওসেড এ অনুষ্ঠানের আয়োজন করে। প্রধান অতিথির বক্তৃতায় সিটি মেয়র বলেন, জলবায়ু পরিবর্তনের ফলে ক্ষতিগ্রস্ত দেশগুলোর তালিকায় বাংলাদেশ প্রায় শীর্ষে অবস্থান করছে। জলবায়ু পরিবর্তনের ফলে দুর্যোগ বেশি হচ্ছে, নদী ভাঙ্গন বাড়ছে, বেশি বেশি ঝড় ও বন্যা মতো দুর্যোগ হচ্ছে। বাংলাদেশের দক্ষিণাঞ্চলে পানিতে লবনাক্ততার মাত্রা বেড়ে যাচ্ছে। জলবায়ু পরিবর্তন মোকাবেলায় কার্বন নি:সরণ কমানোসহ কলকারখানার কালো ধোয়া নির্গমন কমিয়ে আনতে হবে। জীবাশ্ম জ্বালানির ব্যবহার কমাতে হবে। জলবায়ু পরিবর্তনের বিরূপ প্রতিক্রিয়া সম্পর্কে মানুষকে সচেতন করতে হবে। তিনি আরও বলেন, জলবায়ু পরিবর্তন জনিত বাস্তুচ্যুতি ও ক্ষয়ক্ষতি নিরুপণের সার্বজনীন কাঠামো তৈরী ও তার যথাযথ ব্যবহারের উদ্যোগ গ্রহণ করা হয়েছে। খুলনা সিটি কর্পোরেশন এলাকার মোট ২২টি খাল সংস্কার করা হচ্ছে। ময়ুর নদ দৃশ্যমান করার জন্য আটশত কোটি টাকার কাজ চলমান রয়েছে। অন্যান্য স্লুইচগেটগুলো মেরামত করা হচ্ছে। সংবাদ সম্মেলনে কেসিসির প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা লস্কার তাজুল ইসলাম, খুলনা ওয়াসার ব্যবস্থাপনা পরিচালক মোঃ আব্দুল্লাহ, কেসিসি’র প্যানেল মেয়র মোঃ আলী আকবর টিপু, খুলনা প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশবিদ্যালয়ের ইউআরপি বিভাগের অধ্যাপক ড. মোস্তফা সারোয়ার, পানি অধিকার কমিটির সভাপতি রেহানা আক্তার, কো-চেয়ারম্যান জয়ন্ত রানী সরদারসহ প্রিন্ট ও ইলেক্টনিক মিডিয়াকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন। উল্লেখ্য, গত ৬ থেকে ১৮ নভেম্বর পর্যন্ত মিশরের শার্ম আল শেখে ২৭তম জাতিসংঘ জলবায়ু সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। এই সম্মেলনে ১৯৮টি দেশ অংশ গ্রহণ করে। ##

Tag :
লেখক তথ্য সম্পর্কে

Dainik Madhumati

দশমিনায় অসহায় ও দরিদ্রদের মাঝে চেক বিতরণ

জলবায়ু পরিবর্তনের ফলে নদী ভাঙ্গন, ঝড় ও বন্যা সহ প্রাকৃতিক দুর্যোগ বাড়ছে

প্রকাশিত সময় : ০১:১৬:২৯ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ৬ ডিসেম্বর ২০২২

###    জলবায়ু সম্মেলন পরবর্তী এক সংবাদ সম্মেলন সোমবার দুপুরে খুলনা সিটি কর্পোরেশন (কেসিসি)’র শহিদ আলতাফ মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত হয়। সংবাদ সম্মেলনে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন কেসিসি’র মেয়র তালুকদার আব্দুল খালেক। তৃতীয় উপকূলীয় পানি সম্মেলন কমিটি ও বেসরকারি উন্নয়ন সংস্থা অ্যাওসেড এ অনুষ্ঠানের আয়োজন করে। প্রধান অতিথির বক্তৃতায় সিটি মেয়র বলেন, জলবায়ু পরিবর্তনের ফলে ক্ষতিগ্রস্ত দেশগুলোর তালিকায় বাংলাদেশ প্রায় শীর্ষে অবস্থান করছে। জলবায়ু পরিবর্তনের ফলে দুর্যোগ বেশি হচ্ছে, নদী ভাঙ্গন বাড়ছে, বেশি বেশি ঝড় ও বন্যা মতো দুর্যোগ হচ্ছে। বাংলাদেশের দক্ষিণাঞ্চলে পানিতে লবনাক্ততার মাত্রা বেড়ে যাচ্ছে। জলবায়ু পরিবর্তন মোকাবেলায় কার্বন নি:সরণ কমানোসহ কলকারখানার কালো ধোয়া নির্গমন কমিয়ে আনতে হবে। জীবাশ্ম জ্বালানির ব্যবহার কমাতে হবে। জলবায়ু পরিবর্তনের বিরূপ প্রতিক্রিয়া সম্পর্কে মানুষকে সচেতন করতে হবে। তিনি আরও বলেন, জলবায়ু পরিবর্তন জনিত বাস্তুচ্যুতি ও ক্ষয়ক্ষতি নিরুপণের সার্বজনীন কাঠামো তৈরী ও তার যথাযথ ব্যবহারের উদ্যোগ গ্রহণ করা হয়েছে। খুলনা সিটি কর্পোরেশন এলাকার মোট ২২টি খাল সংস্কার করা হচ্ছে। ময়ুর নদ দৃশ্যমান করার জন্য আটশত কোটি টাকার কাজ চলমান রয়েছে। অন্যান্য স্লুইচগেটগুলো মেরামত করা হচ্ছে। সংবাদ সম্মেলনে কেসিসির প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা লস্কার তাজুল ইসলাম, খুলনা ওয়াসার ব্যবস্থাপনা পরিচালক মোঃ আব্দুল্লাহ, কেসিসি’র প্যানেল মেয়র মোঃ আলী আকবর টিপু, খুলনা প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশবিদ্যালয়ের ইউআরপি বিভাগের অধ্যাপক ড. মোস্তফা সারোয়ার, পানি অধিকার কমিটির সভাপতি রেহানা আক্তার, কো-চেয়ারম্যান জয়ন্ত রানী সরদারসহ প্রিন্ট ও ইলেক্টনিক মিডিয়াকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন। উল্লেখ্য, গত ৬ থেকে ১৮ নভেম্বর পর্যন্ত মিশরের শার্ম আল শেখে ২৭তম জাতিসংঘ জলবায়ু সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। এই সম্মেলনে ১৯৮টি দেশ অংশ গ্রহণ করে। ##