০৬:৫০ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৩০ মে ২০২৪, ১৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

জাতীয় নির্বাচনে চমক আছে: ইসি রাশেদা সুলতানা

  • মধুমতি ডেস্ক :
  • প্রকাশিত সময় : ০১:৪৫:৪৮ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২৯ সেপ্টেম্বর ২০২২
  • ৫২ পড়েছেন
নির্বাচন কমিশনার (ইসি) বেগম রাশেদা সুলতানা বলেছেন, সব রাজনৈতিক দলের অংশগ্রহণে গ্রহণযোগ্য নির্বাচনের ক্ষেত্রে আগামী জাতীয় নির্বাচনে চমক আছে।
বৃহস্পতিবার (২৯ সেপ্টেম্বর) দুপুরে জেলা পরিষদ নির্বাচন সংক্রান্ত সফরে গিয়ে রংপুর সার্কিট হাউসে তিনি এ কথা বলেন।
তিনি বলেন, অনেক রাজনৈতিক দল নির্বাচন কমিশনের ডাকে সাড়া দেয়নি। তবে সাড়া যে একেবারে দেবে না, সেটি এখনও বলা যাবে না। আমরা আশা করি সাড়া দেবে।
বেগম রাশেদা সুলতানা বলেন, ইভিএম নিয়ে অনেকেই শঙ্কা প্রকাশ করেন। কিন্তু বিভিন্ন মাধ্যমে এখন পর্যন্ত শঙ্কার কোনো কারণ খুঁজে পায়নি নির্বাচন কমিশন। আমরা সবাইকে একাধিকবার উদাত্ত আহ্বান জানিয়েছি ইভিএমের কোনো ত্রুটি শনাক্ত করতে পারলে আমাদের অবহিত করবেন। কিন্তু এখন পর্যন্ত কেউ কোনো ত্রুটি শনাক্ত করতে পারেননি।
তিনি আরও বলেন, রংপুর সিটি করপোরেশনের নির্বাচন নিয়ে এখনও কোনো মিটিং হয়নি। কোনো প্রস্তুতি কিংবা কোনো সিদ্ধান্ত হয়নি। তবে ডিসেম্বর থেকে ফেব্রুয়ারি মাসের মধ্যেই সঠিক সময়ে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে।
রংপুর সিটি করপোরেশন নির্বাচনে ইভিএম ব্যবহার করা হবে জানিয়ে বেগম রাশেদা সুলতানা বলেন, এটি চলমান বিষয়। সব নির্বাচনের বুথে সিসি ক্যামেরার ব্যবস্থা থাকবে। ইতোমধ্যে আমরা সিসি ক্যামেরার ব্যবস্থা করেছি। তবে জেলা পরিষদ নির্বাচনে ইভিএম ব্যবস্থা থাকলেও সিসি ক্যামেরা থাকবে না।
এ সময় রংপুরের জেলা প্রশাসক আসিব আহসান ও আঞ্চলিক নির্বাচন কর্মকর্তা জিএম সাহাতাবসহ অন্যান্য নির্বাচন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।
Tag :
লেখক তথ্য সম্পর্কে

dainik madhumati

জনপ্রিয়

দেবহাটায় জাতীয় ভিটামিন ‘এ’ প্লাস ক্যাম্পেইন এ্যাডভোকেসি সভা অনুষ্ঠিত 

জাতীয় নির্বাচনে চমক আছে: ইসি রাশেদা সুলতানা

প্রকাশিত সময় : ০১:৪৫:৪৮ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২৯ সেপ্টেম্বর ২০২২
নির্বাচন কমিশনার (ইসি) বেগম রাশেদা সুলতানা বলেছেন, সব রাজনৈতিক দলের অংশগ্রহণে গ্রহণযোগ্য নির্বাচনের ক্ষেত্রে আগামী জাতীয় নির্বাচনে চমক আছে।
বৃহস্পতিবার (২৯ সেপ্টেম্বর) দুপুরে জেলা পরিষদ নির্বাচন সংক্রান্ত সফরে গিয়ে রংপুর সার্কিট হাউসে তিনি এ কথা বলেন।
তিনি বলেন, অনেক রাজনৈতিক দল নির্বাচন কমিশনের ডাকে সাড়া দেয়নি। তবে সাড়া যে একেবারে দেবে না, সেটি এখনও বলা যাবে না। আমরা আশা করি সাড়া দেবে।
বেগম রাশেদা সুলতানা বলেন, ইভিএম নিয়ে অনেকেই শঙ্কা প্রকাশ করেন। কিন্তু বিভিন্ন মাধ্যমে এখন পর্যন্ত শঙ্কার কোনো কারণ খুঁজে পায়নি নির্বাচন কমিশন। আমরা সবাইকে একাধিকবার উদাত্ত আহ্বান জানিয়েছি ইভিএমের কোনো ত্রুটি শনাক্ত করতে পারলে আমাদের অবহিত করবেন। কিন্তু এখন পর্যন্ত কেউ কোনো ত্রুটি শনাক্ত করতে পারেননি।
তিনি আরও বলেন, রংপুর সিটি করপোরেশনের নির্বাচন নিয়ে এখনও কোনো মিটিং হয়নি। কোনো প্রস্তুতি কিংবা কোনো সিদ্ধান্ত হয়নি। তবে ডিসেম্বর থেকে ফেব্রুয়ারি মাসের মধ্যেই সঠিক সময়ে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে।
রংপুর সিটি করপোরেশন নির্বাচনে ইভিএম ব্যবহার করা হবে জানিয়ে বেগম রাশেদা সুলতানা বলেন, এটি চলমান বিষয়। সব নির্বাচনের বুথে সিসি ক্যামেরার ব্যবস্থা থাকবে। ইতোমধ্যে আমরা সিসি ক্যামেরার ব্যবস্থা করেছি। তবে জেলা পরিষদ নির্বাচনে ইভিএম ব্যবস্থা থাকলেও সিসি ক্যামেরা থাকবে না।
এ সময় রংপুরের জেলা প্রশাসক আসিব আহসান ও আঞ্চলিক নির্বাচন কর্মকর্তা জিএম সাহাতাবসহ অন্যান্য নির্বাচন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।