০৫:৫১ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ১৫ জুলাই ২০২৪, ৩০ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ডুমুরিয়ায় যাত্রীবাহী বাস-প্রাইভেট কারের মুখোমুখি সংঘর্ষে নিহত-৪, আহত- ২৫

  • সংবাদদাতা
  • প্রকাশিত সময় : ০৫:০৩:৩৪ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৯ জুলাই ২০২৩
  • ২৬ পড়েছেন

খুলনার ডুমুরিয়ায় যাত্রীবাহী বাস ও প্রাইভেট কারের মুখোমুখি সংঘর্ষে এক সড়ক দুর্ঘটনায় মারা গেছেন ৪জন এবং আহত হয়েছেন কমপক্ষ্যে ২৫ জন। গতকাল শনিবার সকাল সাড়ে ১০টায় খুলনা-সাতক্ষীরা মহাসড়কের মেছাঘোনা ফায়ার সার্ভিস অফিসের পশ্চিম পাশে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

প্রত্যক্ষদর্শী ও পুলিশ সুত্রে জানা গেছে, শনিবার সকালে খুলনাগামী যাত্রীবাহী বাস যার নং-খুলনা মেট্রো জ ০৪-০০৯৯ সাতক্ষীরা থেকে ছেড়ে খুলনা অভিমুখে যাচ্ছিল। পথিমধ্যে ডুমুরিয়া উপজেলার মেছাঘোনা ফায়ার সার্ভিস অফিসের পশ্চিম পাশে পৌঁছালে অপর দিক দিয়ে আসা একটি প্রাইভেট কার যার নং-ঢাকা মেট্রো গ ৩৯-৩৬৬৯ সঙ্গে মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এতে যাত্রীবাহি বাসটি ছিটকে পাশের খাদে উল্টে পড়ে আর প্রাইভেট কারের সামনের অংশে ভেঙ্গে মুচড়ে যায়। তখন বাসের যাত্রীদের ডাক-চিৎকারে আশপাশের লোকজন ছুটে এসে উদ্ধার কাজ শুরু করে। কিছুক্ষণ পরে ডুমুরিয়া থানা পুলিশ, উপজেলা ফায়ার সার্ভিস ষ্টেসন ও হাইওয়ে পুলিশ টীম ঘটনাস্থলে এসে একত্রিত হয়ে উদ্ধার কাজ আরও গতি বৃদ্ধি করে। এ সময় ছন্দা খানম (২৪), শাহেদ হাসান (৪০), সবুজ গাজী (২৪), মোঃ তুহিন (১৬), হিরা বেগম (৩০), সবুজ কুমার পাল (৩৫), হাসান (২৫), সুলতানা পারভীন (৪৫), জেমিমা কবির (৩০), আহাদ গাজী (১২), বাবুল শরীফ (৫০), উম্মে সালমা (২৩), আমেনা বেগম (৫০), নুর ইসলাম (৫২), রিজিয়া বেগম (৫০), জাহাঙ্গীর আলম (৫৫), বেলাল হোসেন (২৮), মোস্তফা শেখ (৫৫), বেসি বেগম (৫৫) ও আইয়ুব আলীকে (৪২) আহত অবস্থায় উদ্ধার করে ডুমুরিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেয়া হয়। আহতদের মধ্যে কলারোয়ার সুলাতানা পারভীন, খুলনা তেলিগাতির আহাদ গাজী, মাদারিপুরের বেবি বেগম ও অজ্ঞাত পরিচয়ের এক পুরুষ (৪০) ব্যক্তিকে ডাক্তাররা মৃত বলে ঘোষণা করেন। এছাড়া গুরুতর আহত ৮জনকে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়। বাকীরা ডুমুরিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি আছে বলে জানা গেছে। এ বিষয়ে ডুমুরিয়া থানা অফিসার ইনচার্জ (ওসি) সেখ কনি মিয়া বিপিএম জানান, প্রাথমিক ভাবে জানা গেছে, একটি মোটর সাইকেলকে সেভ করতে গিয়ে ওই বাস আর প্রাইভেট কারের মধ্যে সংঘর্ষ হয়েছে। আমরাসহ স্থানীয় জনতা, ফায়ার সার্ভিস কর্মী ও হাইওয়ে পুলিশ টীম একত্রিত হয়ে আহতদের উদ্ধার করেছি। তবে দুর্ঘটনাটি ছিল ভয়াবহ। প্রায় দুই ঘন্টা ধরে উদ্ধার কাজ চালানো হয়। এ সময় খুলনা-সাতক্ষীরা মহাসড়কের যান চলাচল বন্ধ রাখা হয়। বর্তমানে স্বাভাবিক অবস্থা বিরাজ করছে। আমরা নিহতদের স্বজনদের সংবাদ দিয়েছি। একই সাথে আহতদের চিকিৎসার জন্য ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে। ডুমুরিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের মেডিকেল অফিসার ডাঃ মোঃ মুরাদ হোসেন জানান, দুর্ঘটনায় আহতদের মধ্যে ৪জন মারা গেছেন। আর আহতদের মধ্যে গুরুতর ৮জনকে খুলনায় প্রেরণ করা হয়েছে। বাকীরা স্বাভাবিক অবস্থায় ডুমুরিয়া হাসপাতালে ভর্তি আছে। ##

Tag :
লেখক তথ্য সম্পর্কে

dainik madhumati

জনপ্রিয়

রাজশাহী কৃষি উন্নয়ন ব্যাংক একীভূতকরণের প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলন, ষড়যন্ত্রমূলক অপতৎপরতা রুখে দাড়ানোর আহবান

ডুমুরিয়ায় যাত্রীবাহী বাস-প্রাইভেট কারের মুখোমুখি সংঘর্ষে নিহত-৪, আহত- ২৫

প্রকাশিত সময় : ০৫:০৩:৩৪ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৯ জুলাই ২০২৩

খুলনার ডুমুরিয়ায় যাত্রীবাহী বাস ও প্রাইভেট কারের মুখোমুখি সংঘর্ষে এক সড়ক দুর্ঘটনায় মারা গেছেন ৪জন এবং আহত হয়েছেন কমপক্ষ্যে ২৫ জন। গতকাল শনিবার সকাল সাড়ে ১০টায় খুলনা-সাতক্ষীরা মহাসড়কের মেছাঘোনা ফায়ার সার্ভিস অফিসের পশ্চিম পাশে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

প্রত্যক্ষদর্শী ও পুলিশ সুত্রে জানা গেছে, শনিবার সকালে খুলনাগামী যাত্রীবাহী বাস যার নং-খুলনা মেট্রো জ ০৪-০০৯৯ সাতক্ষীরা থেকে ছেড়ে খুলনা অভিমুখে যাচ্ছিল। পথিমধ্যে ডুমুরিয়া উপজেলার মেছাঘোনা ফায়ার সার্ভিস অফিসের পশ্চিম পাশে পৌঁছালে অপর দিক দিয়ে আসা একটি প্রাইভেট কার যার নং-ঢাকা মেট্রো গ ৩৯-৩৬৬৯ সঙ্গে মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এতে যাত্রীবাহি বাসটি ছিটকে পাশের খাদে উল্টে পড়ে আর প্রাইভেট কারের সামনের অংশে ভেঙ্গে মুচড়ে যায়। তখন বাসের যাত্রীদের ডাক-চিৎকারে আশপাশের লোকজন ছুটে এসে উদ্ধার কাজ শুরু করে। কিছুক্ষণ পরে ডুমুরিয়া থানা পুলিশ, উপজেলা ফায়ার সার্ভিস ষ্টেসন ও হাইওয়ে পুলিশ টীম ঘটনাস্থলে এসে একত্রিত হয়ে উদ্ধার কাজ আরও গতি বৃদ্ধি করে। এ সময় ছন্দা খানম (২৪), শাহেদ হাসান (৪০), সবুজ গাজী (২৪), মোঃ তুহিন (১৬), হিরা বেগম (৩০), সবুজ কুমার পাল (৩৫), হাসান (২৫), সুলতানা পারভীন (৪৫), জেমিমা কবির (৩০), আহাদ গাজী (১২), বাবুল শরীফ (৫০), উম্মে সালমা (২৩), আমেনা বেগম (৫০), নুর ইসলাম (৫২), রিজিয়া বেগম (৫০), জাহাঙ্গীর আলম (৫৫), বেলাল হোসেন (২৮), মোস্তফা শেখ (৫৫), বেসি বেগম (৫৫) ও আইয়ুব আলীকে (৪২) আহত অবস্থায় উদ্ধার করে ডুমুরিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেয়া হয়। আহতদের মধ্যে কলারোয়ার সুলাতানা পারভীন, খুলনা তেলিগাতির আহাদ গাজী, মাদারিপুরের বেবি বেগম ও অজ্ঞাত পরিচয়ের এক পুরুষ (৪০) ব্যক্তিকে ডাক্তাররা মৃত বলে ঘোষণা করেন। এছাড়া গুরুতর আহত ৮জনকে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়। বাকীরা ডুমুরিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি আছে বলে জানা গেছে। এ বিষয়ে ডুমুরিয়া থানা অফিসার ইনচার্জ (ওসি) সেখ কনি মিয়া বিপিএম জানান, প্রাথমিক ভাবে জানা গেছে, একটি মোটর সাইকেলকে সেভ করতে গিয়ে ওই বাস আর প্রাইভেট কারের মধ্যে সংঘর্ষ হয়েছে। আমরাসহ স্থানীয় জনতা, ফায়ার সার্ভিস কর্মী ও হাইওয়ে পুলিশ টীম একত্রিত হয়ে আহতদের উদ্ধার করেছি। তবে দুর্ঘটনাটি ছিল ভয়াবহ। প্রায় দুই ঘন্টা ধরে উদ্ধার কাজ চালানো হয়। এ সময় খুলনা-সাতক্ষীরা মহাসড়কের যান চলাচল বন্ধ রাখা হয়। বর্তমানে স্বাভাবিক অবস্থা বিরাজ করছে। আমরা নিহতদের স্বজনদের সংবাদ দিয়েছি। একই সাথে আহতদের চিকিৎসার জন্য ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে। ডুমুরিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের মেডিকেল অফিসার ডাঃ মোঃ মুরাদ হোসেন জানান, দুর্ঘটনায় আহতদের মধ্যে ৪জন মারা গেছেন। আর আহতদের মধ্যে গুরুতর ৮জনকে খুলনায় প্রেরণ করা হয়েছে। বাকীরা স্বাভাবিক অবস্থায় ডুমুরিয়া হাসপাতালে ভর্তি আছে। ##