০৪:২৪ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ১৫ জুলাই ২০২৪, ৩০ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ডুমুরিয়ায় ৫০ বছরের রাস্তা বন্ধ করে সীমানা প্রাচীর, ১২টি পরিবার গৃহবন্দীর আশঙ্কা

####

খুলনা ডুমুরিয়া উপজেলার রোস্তমপুর পূর্বপাড়া জামে মসজিদের সীমানা প্রাচীর দিতে গিয়ে ১২টি পরিবার গৃহবন্দী হওয়ার আশঙ্কা দেখা দিয়েছে। এ ঘটনায় উক্ত পরিবার গুলো চরম হতাশার মধ্যে দিনাতিপাত করছে। যদি তাদের চলাচলের একমাত্র রাস্তাটি বন্ধ করে দেওয়া হয়, তাহলে তাদের গৃহবন্দী হয়ে থাকতে হবে। মুসল্লীরা মসজিদে নামাজ আদায় করতে যেতে পারবে না। মূলতও একটি মহল প্রতিহিংসার বশবর্তী হয়েই পরিবার গুলোকে কৌশলে গৃহবন্দী করে রাখার চেষ্টা করছে। পূর্বপাড়ায় বসবাসকারী ইসলাম উদ্দিন গাজী, মোসলেম উদ্দিন গাজী, মোক্তার গাজী, মোরফিকুল ইসলাম গাজী, নজরুল গাজী, কামরুল গাজী, জিএম ইমরান হোসেন, তাজমুল ইসলাম, রিপন গাজী, এনামুল গাজী, শিমুল মোড়ল, মাসুদ মোড়ল জানায়, দীর্ঘ ৫০ বছরে ধরে আমাদের পূর্বপুরুষগন মসজিদের পাশের রাস্তা দিয়ে চলাচল করে আসছে। মুসল্লীরা মসজিদে নামাজ আদায় করে আসছে। কিন্তু বর্তমান মসজিদ কমিটির কতিপয় ব্যক্তির সাথে আমাদের মনোমালিন্য থাকায় তারা প্রতিহিংসা পরায়ন হয়ে মসজিদ কমিটির সাধারণ সম্পাদক শেখ শহিদুল ইসলাম, হাফিজুর রহমান গোলদার, যোগসাজশে রাস্তা বন্ধ করে দেওয়ার চেষ্টা চলছে। তাদের দাবি আমরা মসজিদের সীমানা প্রাচীরের বিপক্ষে নই, কারণ মসজিদ তৈরি করার জন্য আমরা সকলে জমি দিয়েছি। যাতে নিজেদের মসজিদে গিয়ে নামাজ আদায় করতে পারি। কিন্তু পরিকল্পিতভাবে আমাদের মসজিদে যাওয়া বন্ধ করে দেওয়া হচ্ছে। তবে উত্তর পাশ বরাবর যদি মাত্র ৩ হাত জায়গা রেখে সীমানা প্রাচীর দেওয়া হয়, তাহলে পরিবার গুলো রাস্তা চলাচল করতে পারবে। এতে কোন ক্ষতিও হবে না। যদি রাস্তা দেওয়া না হয়, তাহলে তাদের গৃহবন্দী হয়ে থাকতে হবে। মসজিদে গিয়ে নামাজ আদায় করাও বন্ধ হয়ে যাবে।
এব্যাপারে আটলিয়া ইউপি চেয়ারম্যান শেখ হেলাল উদ্দিন বলেন, যেহেতু রাস্তাটি দিয়ে দীর্ঘদিন ধরে একটি এলাকার মানুষ চলাচল করা সহ মসজিদে নামাজ আদায় করতে আসে সেহেতু রাস্তাটি বন্ধ করা উচিৎ না। ##

Tag :
লেখক তথ্য সম্পর্কে

Dainik Madhumati

জনপ্রিয়

রাজশাহী কৃষি উন্নয়ন ব্যাংক একীভূতকরণের প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলন, ষড়যন্ত্রমূলক অপতৎপরতা রুখে দাড়ানোর আহবান

ডুমুরিয়ায় ৫০ বছরের রাস্তা বন্ধ করে সীমানা প্রাচীর, ১২টি পরিবার গৃহবন্দীর আশঙ্কা

প্রকাশিত সময় : ১০:৫৩:৩৩ অপরাহ্ন, বুধবার, ২৬ জুন ২০২৪

####

খুলনা ডুমুরিয়া উপজেলার রোস্তমপুর পূর্বপাড়া জামে মসজিদের সীমানা প্রাচীর দিতে গিয়ে ১২টি পরিবার গৃহবন্দী হওয়ার আশঙ্কা দেখা দিয়েছে। এ ঘটনায় উক্ত পরিবার গুলো চরম হতাশার মধ্যে দিনাতিপাত করছে। যদি তাদের চলাচলের একমাত্র রাস্তাটি বন্ধ করে দেওয়া হয়, তাহলে তাদের গৃহবন্দী হয়ে থাকতে হবে। মুসল্লীরা মসজিদে নামাজ আদায় করতে যেতে পারবে না। মূলতও একটি মহল প্রতিহিংসার বশবর্তী হয়েই পরিবার গুলোকে কৌশলে গৃহবন্দী করে রাখার চেষ্টা করছে। পূর্বপাড়ায় বসবাসকারী ইসলাম উদ্দিন গাজী, মোসলেম উদ্দিন গাজী, মোক্তার গাজী, মোরফিকুল ইসলাম গাজী, নজরুল গাজী, কামরুল গাজী, জিএম ইমরান হোসেন, তাজমুল ইসলাম, রিপন গাজী, এনামুল গাজী, শিমুল মোড়ল, মাসুদ মোড়ল জানায়, দীর্ঘ ৫০ বছরে ধরে আমাদের পূর্বপুরুষগন মসজিদের পাশের রাস্তা দিয়ে চলাচল করে আসছে। মুসল্লীরা মসজিদে নামাজ আদায় করে আসছে। কিন্তু বর্তমান মসজিদ কমিটির কতিপয় ব্যক্তির সাথে আমাদের মনোমালিন্য থাকায় তারা প্রতিহিংসা পরায়ন হয়ে মসজিদ কমিটির সাধারণ সম্পাদক শেখ শহিদুল ইসলাম, হাফিজুর রহমান গোলদার, যোগসাজশে রাস্তা বন্ধ করে দেওয়ার চেষ্টা চলছে। তাদের দাবি আমরা মসজিদের সীমানা প্রাচীরের বিপক্ষে নই, কারণ মসজিদ তৈরি করার জন্য আমরা সকলে জমি দিয়েছি। যাতে নিজেদের মসজিদে গিয়ে নামাজ আদায় করতে পারি। কিন্তু পরিকল্পিতভাবে আমাদের মসজিদে যাওয়া বন্ধ করে দেওয়া হচ্ছে। তবে উত্তর পাশ বরাবর যদি মাত্র ৩ হাত জায়গা রেখে সীমানা প্রাচীর দেওয়া হয়, তাহলে পরিবার গুলো রাস্তা চলাচল করতে পারবে। এতে কোন ক্ষতিও হবে না। যদি রাস্তা দেওয়া না হয়, তাহলে তাদের গৃহবন্দী হয়ে থাকতে হবে। মসজিদে গিয়ে নামাজ আদায় করাও বন্ধ হয়ে যাবে।
এব্যাপারে আটলিয়া ইউপি চেয়ারম্যান শেখ হেলাল উদ্দিন বলেন, যেহেতু রাস্তাটি দিয়ে দীর্ঘদিন ধরে একটি এলাকার মানুষ চলাচল করা সহ মসজিদে নামাজ আদায় করতে আসে সেহেতু রাস্তাটি বন্ধ করা উচিৎ না। ##