০৩:৪৫ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৫ জুন ২০২৪, ১০ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
মুজিব কর্ণার উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে রায়হান ফরিদ

বাংলা সাহিত্যকে বিশ্ব দরবারে মর্যাদার আসনে প্রতিষ্ঠিত করেছেন, রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর তাঁদের মধ্যে অন্যতম

###    খুলনা জেলা যুবলীগের সভাপতি ও জেলা পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান চৌধুরী মো. রায়হান ফরিদ বলেছেন, বিশ্বকবি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর বাংলা সাহিত্যের অন্যতম প্রাণপুরুষ তিনি একাধারে কবি, নাট্যকার, ছোটগল্পকার, গীতিকার, সুরকার, সাহিত্যিক ও অভিনেতা ছিলেন। বাংলা সাহিত্যকে বিশ্বের দরবারে মর্যাদার আসনে যেসব কবি সাহিত্যিক প্রতিষ্ঠিত করেছেন, রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর তাঁদের মধ্যে অন্যতম । তিনি কলকাতার জোড়াসাঁকোর বিখ্যাত ঠাকুর পরিবারে ১৮৬১ সালের ৭ মে (১২৬৮ বঙ্গাব্দের ২৫ বৈশাখ) জন্মগ্রহণ করেন। শৈশবে গৃহশিক্ষকের কাছে বিভিন্ন বিষয়ে তাঁর লেখাপড়ার হাতেখড়ি হয়। এরপর তিনি কলকাতা নর্মাল স্কুলে ভর্তি হন। তিনি পড়াশোনার জন্য ১৭ বছর বয়সে বিলাত যান। সেখানে ব্রাইটন পাবলিক স্কুল ও লন্ডন বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়াশোনা করেন। মাত্র ১৪ বছর বয়সে তাঁর প্রথম কবিতার বই বনফুল প্রকাশিত হয়। দীর্ঘ সাহিত্য জীবনে তিনি অসংখ্য কবিতা, গান, উপন্যাস ও প্রবন্ধ রচনা করেন। রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর গীতাঞ্জলি কাব্যগ্রন্থের জন্য ১৯১৩ সালে সাহিত্যে নোবেল পুরস্কার লাভ করেন। এশীয়দের মধ্যে প্রথম সাহিত্যিক হিসেবে তিনি এ পুরস্কারটি লাভ করেন । ৭ আগষ্ট ১৯৪১ (১৩৪৮ বঙ্গাব্দের ২২ শ্রাবণ) বিশ্বকবি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর পরলোক গমন করেন। তেমনি বাংলা ভাষাকে আমাদের মাতৃভাষা ও বাঙালির মুক্তির জন্য সংগ্রাম করে গেছেন বাঙালী জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান। এজন্য আগামী প্রজন্মকে বঙ্গবন্ধু ও বাংলাদেশকে ও জানতে হবে।

সোমবার (০৮ মে) বিকেলে ফুলতলার দক্ষিণ ডিহিতে বিশ্বকবি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের ১৬১তম জন্মবার্ষিক উপলক্ষে আয়োজিত রবীন্দ্র মেলায় বঙ্গবন্ধু কর্ণারের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। জেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক ইঞ্জি. মো. মাহফুজুর রহমান সোহাগের পরিচালনায় অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মাঝে উপস্থিত ছিলেন, যুবলীগ নেতা  এসকে আলী ইয়াছিন, মো. হারুন আর রশিদ, শেখ শহিদুল্লাহ প্রিন্স, রবিন বসু, আশরাফুল ইসলাম কচি, মেহেদি হাসান রাজা, তরিকুল ইসলাম সুমন, হাবিবুল্লাহ বাহার হাবিব, মো. জাকিয়ার রহমান ওমান, কবির আহমে¥দ মনা, আরাফাত হোসেন মিয়া, সাদিক মামুন, তাপস জোয়ার্দার, অভিজিত চক্রবর্তী রিপন ঘোষ, জাহিদুল কবির, ইয়াছিনুর রহমান খান, মোর্শেদ রিয়াদ, রাকিব হাসান, মিনারুল ইসলাম, তুহিন বাবু, নাভিদ গজনবীসহ ডুমুরিয়া ও ফুলতলা উপজেলা যুবলীগের বিভিন্ন পর্যায়ের নেতৃবৃন্দ।##

Tag :
লেখক তথ্য সম্পর্কে

Dainik adhumati

জনপ্রিয়

গলাচিপায় অবৈধ দোকান উচ্ছেদের মাধ্যমে রাস্তা উন্মুক্ত করায় প্রসংশিত মেয়র

মুজিব কর্ণার উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে রায়হান ফরিদ

বাংলা সাহিত্যকে বিশ্ব দরবারে মর্যাদার আসনে প্রতিষ্ঠিত করেছেন, রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর তাঁদের মধ্যে অন্যতম

প্রকাশিত সময় : ০৯:৫৭:১০ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ৯ মে ২০২৩

###    খুলনা জেলা যুবলীগের সভাপতি ও জেলা পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান চৌধুরী মো. রায়হান ফরিদ বলেছেন, বিশ্বকবি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর বাংলা সাহিত্যের অন্যতম প্রাণপুরুষ তিনি একাধারে কবি, নাট্যকার, ছোটগল্পকার, গীতিকার, সুরকার, সাহিত্যিক ও অভিনেতা ছিলেন। বাংলা সাহিত্যকে বিশ্বের দরবারে মর্যাদার আসনে যেসব কবি সাহিত্যিক প্রতিষ্ঠিত করেছেন, রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর তাঁদের মধ্যে অন্যতম । তিনি কলকাতার জোড়াসাঁকোর বিখ্যাত ঠাকুর পরিবারে ১৮৬১ সালের ৭ মে (১২৬৮ বঙ্গাব্দের ২৫ বৈশাখ) জন্মগ্রহণ করেন। শৈশবে গৃহশিক্ষকের কাছে বিভিন্ন বিষয়ে তাঁর লেখাপড়ার হাতেখড়ি হয়। এরপর তিনি কলকাতা নর্মাল স্কুলে ভর্তি হন। তিনি পড়াশোনার জন্য ১৭ বছর বয়সে বিলাত যান। সেখানে ব্রাইটন পাবলিক স্কুল ও লন্ডন বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়াশোনা করেন। মাত্র ১৪ বছর বয়সে তাঁর প্রথম কবিতার বই বনফুল প্রকাশিত হয়। দীর্ঘ সাহিত্য জীবনে তিনি অসংখ্য কবিতা, গান, উপন্যাস ও প্রবন্ধ রচনা করেন। রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর গীতাঞ্জলি কাব্যগ্রন্থের জন্য ১৯১৩ সালে সাহিত্যে নোবেল পুরস্কার লাভ করেন। এশীয়দের মধ্যে প্রথম সাহিত্যিক হিসেবে তিনি এ পুরস্কারটি লাভ করেন । ৭ আগষ্ট ১৯৪১ (১৩৪৮ বঙ্গাব্দের ২২ শ্রাবণ) বিশ্বকবি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর পরলোক গমন করেন। তেমনি বাংলা ভাষাকে আমাদের মাতৃভাষা ও বাঙালির মুক্তির জন্য সংগ্রাম করে গেছেন বাঙালী জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান। এজন্য আগামী প্রজন্মকে বঙ্গবন্ধু ও বাংলাদেশকে ও জানতে হবে।

সোমবার (০৮ মে) বিকেলে ফুলতলার দক্ষিণ ডিহিতে বিশ্বকবি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের ১৬১তম জন্মবার্ষিক উপলক্ষে আয়োজিত রবীন্দ্র মেলায় বঙ্গবন্ধু কর্ণারের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। জেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক ইঞ্জি. মো. মাহফুজুর রহমান সোহাগের পরিচালনায় অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মাঝে উপস্থিত ছিলেন, যুবলীগ নেতা  এসকে আলী ইয়াছিন, মো. হারুন আর রশিদ, শেখ শহিদুল্লাহ প্রিন্স, রবিন বসু, আশরাফুল ইসলাম কচি, মেহেদি হাসান রাজা, তরিকুল ইসলাম সুমন, হাবিবুল্লাহ বাহার হাবিব, মো. জাকিয়ার রহমান ওমান, কবির আহমে¥দ মনা, আরাফাত হোসেন মিয়া, সাদিক মামুন, তাপস জোয়ার্দার, অভিজিত চক্রবর্তী রিপন ঘোষ, জাহিদুল কবির, ইয়াছিনুর রহমান খান, মোর্শেদ রিয়াদ, রাকিব হাসান, মিনারুল ইসলাম, তুহিন বাবু, নাভিদ গজনবীসহ ডুমুরিয়া ও ফুলতলা উপজেলা যুবলীগের বিভিন্ন পর্যায়ের নেতৃবৃন্দ।##