০৬:০৬ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ১২ জুলাই ২০২৪, ২৮ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

শেখ হাসিনার সরকার কৃষক, শ্রমিক ও গণমানুষের মুখে হাসি ফুটাতে কাজ করছে : বাবুল রানা

###
খুলনা মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এম ডি এ বাবুল রানা বলেছেন, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান দেশের কৃষির উন্নয়ন এবং কৃষকের স্বার্থ রক্ষার জন্য ১৯৭২ সালের ১৯ এপ্রিল বাংলাদেশ কৃষক লীগ প্রতিষ্ঠা করেন। প্রতিষ্ঠাকালীন সময় থেকে কৃষক লীগ কৃষকদের সংগঠিত করা, তাদের দাবি আদায় এবং দেশের সকল গণতান্ত্রিক আন্দোলনে গৌরবোজ্জ্বল ভূমিকা পালন করে আসছে। তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধু কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বর্তমান সরকার দরিদ্র পরিবারে আর্থিক স্বচ্ছলতা আনতে সামাজিক নিরাপত্তা ভাতা ও প্রতিবন্ধী ভাতাসহ বিভিন্ন প্রকার ভাতা দিচ্ছে। মূলত আওয়ামী লীগ সরকার কৃষক, শ্রমিক ও গণমানুষের মুখে হাসি ফুটাতে কাজ করে যাচ্ছে। তিনি আরো বলেন, কৃষক লীগের নেতা-কর্মীদের কৃষি ও কৃষকের উন্নয়নের পাশাপাশি দেশের সাধারণ মানুষের ভাগ্যোন্নয়নে আরো বেশি নিজেদের আত্মনিয়োগ করতে হবে। জননেত্রী প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে জাতির পিতার ক্ষুধা, দারিদ্র্য ও নিরক্ষরতামুক্ত স্বপ্নের সোনার বাংলা গড়ে তুলতে সবাইকে ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করতে হবে।শুক্রবার বাদ মাগরিব ১১নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগ কার্যালয়ে চত্ত্বরে মহানগর কৃষক লীগ আয়োজিত ১১নং ওয়ার্ড কৃষক লীগের কর্মী সভায় প্রধান অতিথির বক্তৃতায় তিনি এসব কথা বলেন। সভায় সভাপতিত্ব করেন মহানগর কৃষক লীগের আহ্বায়ক এ্যাড. এ কে এম শাহজাহান কচি। মহানগর কৃষক লীগের সদস্য সচিব অধ্যা. এ বি এম আদেল মুকুলের পরিচালনায় এসময়ে অন্যান্যের মধ্যে বক্তৃতা করেন ও উপস্থিত ছিলেন মহানগর আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা শেখ শহিদুল ইসলাম, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মো. আশরাফুল ইসলাম, খালিশপুর থানা আওয়ামী লীগের সভাপতি এ কে এম সানাউল্লাহ নান্নু, সাধারণ সম্পাদক মো. মনিরুল ইসলাম বাশার, নির্বাহী সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা কাউন্সিলর মুন্সি আব্দুল ওয়াদুদ, কাউন্সিলর পারভিন আক্তার, ১১নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগ সভাপতি মো. জাকির হোসেন, মহানগর কৃষক লীগের সদস্য কানাই রায়, মোল্লা মো. সেলিম, ১১নং ওয়ার্ড যুব লীগের যুগ্ম আহ্বায়ক মো. কালাম মন্ডল, স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি মো. সালাহউদ্দিন দুলালসহ আওয়ামী লীগ, কৃষক লীগ ও সহযোগী সংগঠনের বিভিন্ন পর্যায়ের নেতৃবৃন্দ। কর্মী সভায় পলাশ দত্তকে সভাপতি ও মঈন খন্দকার সোহাগকে সাধারণ সম্পাদক করে ১১নং ওয়ার্ড কৃষক লীগের ৬১ সদস্য বিশিষ্ট কমিটি ঘোষণা করা হয়। ##

Tag :
লেখক তথ্য সম্পর্কে

Dainik Madhumati

দশমিনায় অসহায় ও দরিদ্রদের মাঝে চেক বিতরণ

শেখ হাসিনার সরকার কৃষক, শ্রমিক ও গণমানুষের মুখে হাসি ফুটাতে কাজ করছে : বাবুল রানা

প্রকাশিত সময় : ০১:৪৬:২৫ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ১১ মার্চ ২০২৩

###
খুলনা মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এম ডি এ বাবুল রানা বলেছেন, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান দেশের কৃষির উন্নয়ন এবং কৃষকের স্বার্থ রক্ষার জন্য ১৯৭২ সালের ১৯ এপ্রিল বাংলাদেশ কৃষক লীগ প্রতিষ্ঠা করেন। প্রতিষ্ঠাকালীন সময় থেকে কৃষক লীগ কৃষকদের সংগঠিত করা, তাদের দাবি আদায় এবং দেশের সকল গণতান্ত্রিক আন্দোলনে গৌরবোজ্জ্বল ভূমিকা পালন করে আসছে। তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধু কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বর্তমান সরকার দরিদ্র পরিবারে আর্থিক স্বচ্ছলতা আনতে সামাজিক নিরাপত্তা ভাতা ও প্রতিবন্ধী ভাতাসহ বিভিন্ন প্রকার ভাতা দিচ্ছে। মূলত আওয়ামী লীগ সরকার কৃষক, শ্রমিক ও গণমানুষের মুখে হাসি ফুটাতে কাজ করে যাচ্ছে। তিনি আরো বলেন, কৃষক লীগের নেতা-কর্মীদের কৃষি ও কৃষকের উন্নয়নের পাশাপাশি দেশের সাধারণ মানুষের ভাগ্যোন্নয়নে আরো বেশি নিজেদের আত্মনিয়োগ করতে হবে। জননেত্রী প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে জাতির পিতার ক্ষুধা, দারিদ্র্য ও নিরক্ষরতামুক্ত স্বপ্নের সোনার বাংলা গড়ে তুলতে সবাইকে ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করতে হবে।শুক্রবার বাদ মাগরিব ১১নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগ কার্যালয়ে চত্ত্বরে মহানগর কৃষক লীগ আয়োজিত ১১নং ওয়ার্ড কৃষক লীগের কর্মী সভায় প্রধান অতিথির বক্তৃতায় তিনি এসব কথা বলেন। সভায় সভাপতিত্ব করেন মহানগর কৃষক লীগের আহ্বায়ক এ্যাড. এ কে এম শাহজাহান কচি। মহানগর কৃষক লীগের সদস্য সচিব অধ্যা. এ বি এম আদেল মুকুলের পরিচালনায় এসময়ে অন্যান্যের মধ্যে বক্তৃতা করেন ও উপস্থিত ছিলেন মহানগর আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা শেখ শহিদুল ইসলাম, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মো. আশরাফুল ইসলাম, খালিশপুর থানা আওয়ামী লীগের সভাপতি এ কে এম সানাউল্লাহ নান্নু, সাধারণ সম্পাদক মো. মনিরুল ইসলাম বাশার, নির্বাহী সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা কাউন্সিলর মুন্সি আব্দুল ওয়াদুদ, কাউন্সিলর পারভিন আক্তার, ১১নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগ সভাপতি মো. জাকির হোসেন, মহানগর কৃষক লীগের সদস্য কানাই রায়, মোল্লা মো. সেলিম, ১১নং ওয়ার্ড যুব লীগের যুগ্ম আহ্বায়ক মো. কালাম মন্ডল, স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি মো. সালাহউদ্দিন দুলালসহ আওয়ামী লীগ, কৃষক লীগ ও সহযোগী সংগঠনের বিভিন্ন পর্যায়ের নেতৃবৃন্দ। কর্মী সভায় পলাশ দত্তকে সভাপতি ও মঈন খন্দকার সোহাগকে সাধারণ সম্পাদক করে ১১নং ওয়ার্ড কৃষক লীগের ৬১ সদস্য বিশিষ্ট কমিটি ঘোষণা করা হয়। ##